শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

সহিংসতা না চালালে পাসের হার আরো বাড়ত

pm_305366

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, পরীক্ষার সময় বাংলাদেশে একটি অস্বাভাবিক অবস্থা বিরাজ করছিল। এটি ছিল মনুষ্য সৃষ্ট। বিএনপি-জামায়াত সহিংস কর্মকাণ্ড না চালালে পাসের হার আরো বাড়ত। রোববার সকালে প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে এইচএসসির ফল হস্তান্তর অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে ফলাফলের অনুলিপি হস্তান্তর করেন। ফল হস্তান্তর অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন শিক্ষাসচিব নজরুল ইসলাম খান। এসময় ঢাকা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবু বকর সিদ্দিকী, রাজশাহী বোর্ডের প্রফেসর ড. মো. আবুল হায়াত, কুমিল্লা বোর্ডের প্রফেসর ইন্দ্রভূষণ ভৌমিক, যশোর বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবদুল মজিদ, চট্টগ্রাম বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মো. শাহজাহান, বরিশাল বোর্ডের চেয়ারম্যান, ড. মো. জিয়াউল হক, সিলেট বোর্ডের চেয়ারপারসন মমতাজ শাহীন, দিনাজপুর বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আহমেদ হোসেন, মাদ্রাসা বোর্ডের চেয়ারম্যান এ কে এম সাইফুল্লাহ, কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যান ড. মো. মোস্তাফিজুর রহমান একে একে প্রধানমন্ত্রীর হাতে ফলের অনুলিপি তুলে দেন।বিএনপি-জামায়াত জোট যদি আত্মঘাতী সহিংস কর্মকাণ্ড না চালাতো তাহলে পাসের হার আরও বেশি হতো বলে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, সে সময় বিএনপি-জামায়াতের হরতাল-অবরোধ তো ছিলই, সে সঙ্গে ছিল পেট্রোল বোমা মারা। এর মধ্য দিয়ে আমরা এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা নিয়েছি। এতো প্রতিকূল অবস্থার মধ্যেও পরীক্ষা পরবর্তী ৬০ দিনের মধ্যে ফল প্রকাশ করতে পারায় সংশ্লিষ্ট সবাইকে অভিনন্দনও জানান প্রধানমন্ত্রী।প্রধানমন্ত্রী বলেন, শিক্ষার উপর সব সময় আমরা গুরুত্ব দেই। মেয়েদের প্রাইমারি থেকে ডিগ্রি পর্যন্ত বৃত্তির ব্যবস্থা করেছি। কারিগরি শিক্ষার উপর আমরা বেশি গুরুত্ব দিয়েছি। ট্রেনিংয়ের ক্ষেত্রেও আমরা গুরুত্ব দিচ্ছি। তিনি বলেন, বিএনপি জোটের আমলে ঢাকা শহরে নতুন স্কুল-কলেজ হয়নি। আমরা ক্ষমতায় আসার পর নতুন অনেক স্কুল-কলেজ করেছি। ২০০৯ এসে যখন যেখানে জায়গা পেয়েছি সেখানে স্কুল-কলেজ প্রতিষ্ঠা করেছি।প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা ধর্মীয় শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করেছি। তেমনি কারিগরি শিক্ষাকেও বাধ্যতামূলক করেছি। বিশ্বের সঙ্গে আমাদের তাল মিলিয়ে চলতে হবে। সেজন্য আমাদের শিক্ষার হার বাড়াতে হবে। তিনি বলেন, শিক্ষাকে বহুমুখীকরণ ও যুগোপযোগী করতে কাজ করছে সরকার। আরো বিশেষায়িত বিশ্ববিদ্যালয় গড়ে তোলা হবে বলে জানান তিনি।এবারের এইচএসসি পরীক্ষায় পাসের হার ৬৯ দশমিক ৬ শতাংশ। জিপিএ ৫ পেয়েছে ৪২ হাজার ৮৯৪ শিক্ষার্থী।