শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১ কার্তিক ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

অবিলম্বে নতুন নির্বাচন চাই: খালেদা জিয়া

11053_Khaleda-zia with mike

আলোচনার মাধ্যমে দ্রুত নির্বাচন দেয়ার দাবি জানিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বলেছেন, সরকার ক্ষমতায় আছে অস্ত্রের জোরে। জনগণের ভোটে নয়। তবে সেটা বেশি দিন স্থায়ী হবে না। আজ সোমবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে গণসমাবেশে দেয়া বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।এ সময় ৫ জানুয়ারি নির্বাচনের পরের দিন প্রকাশিত পত্রিকা তুলে ধরে খালেদা জিয়া বলেন, জনগণ ভোট দিতে যায়নি। ভোট কেন্দ্রে কুকুর বসে আছে। তিনি আরও একটি পত্রিকার ছবি দেখিয়ে বলেন, রিটার্নিং অফিসাররা ভোট দিয়েছে। তারা নিজেরাই সিল মারছে।তিনি বলেন, এরা হলো কলঙ্কিত সরকার। কলঙ্কিত সরকারকে বলতে চাই, আপনারা জনসমর্থনহীন নির্বাচন করেছেন। নির্লজ্জ এই সরকারকে বলব, এখন নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিয়ে নিজেদের জনসমর্থন যাচাই করুন। তিনি বলেন,এই নির্বাচন সবাই প্রত্যাখ্যান করেছে, এ নির্বাচন কারো কাছে গ্রহণযোগ্য নয়। তাই আমরা বলতে চাই, অতি দ্রুত আলোচনায় বসে নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন।তিনি নির্বাচন কমিশনকে আজ্ঞাবহ উল্লেখ করে বলেন, এই নির্বাচন কমিশনার মেরুদণ্ডহীন। এই নির্বাচন কমিশনের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন হতে পারে না। যেখানে ৫ শতাংশ ভোটও পড়ে নাই, সেখানে এই নির্বাচন কমিশন তিন দিন সময় নিয়ে ৪০ শতাংশ ভোট দেখিয়েছে। সরকার যা যা বলেছে এই কমিশন তা করেছে। সংখ্যালঘুদের ওপর হামলার ঘটনায় সরকারকে দায়ী করে খালেদা জিয়া বলেন, সরকার তাদের (সংখ্যালঘু) নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হয়েছে। তিনি অভিযোগ করেন, মানুষের দৃষ্টি অন্য দিকে ফেরাতে সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা চালানো হচ্ছে।বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, মানুষ ভোটের অধিকার ফিরে পেতে চায়। কিন্তু এই সরকার সবকিছু হরণ করে নিয়েছে। তিনি তরুণ প্রজন্মের উদ্দেশে বলেন, এই সরকার তোমাদের ভোটের অধিকার কেড়ে নিয়েছে। এই সরকার জনগণের সরকার নয়। তারা অবৈধভাবে ক্ষমতায় বসেছে।বিএনপি এলে জঙ্গিদের উত্থান হবে, আওয়ামী লীগের এ দাবিকে অপপ্রচার উল্লেখ করে খালেদা জিয়া বলেন, বিএনপি এলে জঙ্গির উত্থান নয়, নির্মূল হয়। জঙ্গিবাদ সম্পর্কে তিনি আরো বলেন, এই জঙ্গিবাদের সূত্রপাত হয় আপনাদের আমলে। আওয়ামী লীগের আমলে রমনা বটমূলে হামলা হয়। সিপিবির অনুষ্ঠানে বোমা হামলা হয়। খালেদা জিয়া এ সময় বিএনপি সরকারের আমলে জঙ্গি নির্মূলের জন্য র্যাব গঠন করা হয় বলে উল্লেখ করেন। তিনি গ্রামীণ ব্যাংকের পূর্বের অবস্থান ফিরিয়ে দেয়া হবে উল্লেখ করে বলেন, নোবেল জয়ী ইউনূসকে এই সরকার অসম্মান করেছে। আমরা তার সম্মান ফিরিয়ে দেব।

Leave a Reply