শনিবার, ৮ মে ২০২১, ২৫ বৈশাখ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

বেসিক ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদ ভেঙ্গে দিতে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সুপারিশ

basic-bank_105203

দুর্নীতির অভিযোগে বেসিক ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদ ভেঙ্গে দেওয়ার সুপারিশ করেছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশ ব্যাংক গভর্নর ড. আতিউর রহমানের এ সংক্রান্ত চিঠি অর্থ মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে।বাংলাদেশ ব্যাংকের সহকারী মুখপাত্র এ এস এম আসাদুজ্জামান বিষয়টি নিশ্চিত করে সাংবাদিকদের বলেন, ব্যাংক ও আর্থিক সচিব বরাবর পাঠানো চিঠিতে ব্যাংক কোম্পানি আইনের ৪৬ ও ৪৭ ধারা অনুযায়ী বেসিক ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদ ভেঙ্গে দেওয়ার সুপারিশ করা হয়েছে।এদিকে বেসিক ব্যাংকের বর্তমান পরিচালনা পর্ষদ না ভেঙে পুনর্গঠন করার ঘোষণা দিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। বৃহস্পতিবার অর্থ মন্ত্রণালয়ে বাংলাদেশে টেক্সটাইলস মিলস অ্যাসোসিয়েশনের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনা শেষে তিনি এ কথা বলেন। অর্থমন্ত্রী বলেন, বেসিক ব্যাংকের বর্তমান পরিচালনা পর্ষদ ভেঙ্গে দেওয়া হলে এসব অনিয়মের দায়িত্ব কে নেবে? একারণে পর্ষদ ভাঙা হবে না। অর্থমন্ত্রী জানান, বাংলাদেশে ব্যাংকের চিঠি এখনো তিনি হাতে পাননি। চিঠি পেলেই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। সকালে এ বিষয়ে তিনি বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের সঙ্গেকথা হয়েছে বলে মন্ত্রী জানান।সম্প্রতিক রাষ্ট্রায়াত্ব এই ব্যাংকটি চার হাজার কোটি টাকার ঋণ জালিয়াতির ঘটনা ধরা পড়ে। এর প্রেক্ষিতে ইতোমধ্যে ব্যাংকের এমডিসহ ৬ কর্মকর্তাকে অপসারন করা হয়েছে। গত সপ্তাহে বেসিক ব্যাংকের শান্তি নগর, দিলকুশা ও গুলশান শাখার ঋণ কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। ঋণ জালিয়াতির ঘটনার সাথে সম্পৃক্ততার অভিযোগে ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী ফখরুল ইসলামকে অপসারন করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। ঋণ জালিয়াতির ঘটনার সাথে এমডি এবং চেয়ারম্যান সরাসরি জড়িত। ব্যাংকের চেয়ারম্যান শেখ আব্দুল হাই বাচ্চু প্রভাব খাটিয়ে তার শ্যালক ও ভাগিনাকে প্রায় সাড়ে চারশ কোটি টাকার ঋণ দিয়েছেন কোন গ্যারান্টি ছাড়াই। এরকম আরো কয়েকশ কোটি টাকা ঋণের নামে আত্মসাত করা হয়েছে চেয়ারম্যানসহ পরিচালনা পর্ষদের মদদে। এ অবস্থায় পরিচালনা পর্ষদ ভেঙে দেয়ার জন্য অর্থমন্ত্রীকে চিঠি দিলেন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্ণর ড: আতিউর রহমান।