শুক্রবার, ২৫ জুন ২০২১, ১১ আষাঢ় ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

হিউজেসকে স্মরণ করে চতুর্থ ওয়ানডে জয়ের জন্য ঝাঁপাবে বাংলাদেশ

image_156052.bcb logo
জিম্বাবুয়েকে সিরিজ হারানো হয়েছে দুই ম্যাচ হাতে রেখেই।  শুক্রবার ঢাকার মিরপুর স্টেডিয়ামে চতুর্থ ওয়ানডে। পাঁচ ম্যাচের সিরিজে ৩-০ তে এগিয়ে স্বাগতিকরা। এবার তাদের সামনে দাঁড়িয়ে আরো বড় সুযোগ।
চতুর্থ ওয়ানডে শুধু নয়, পঞ্চমটি জিতেও সফরকারীদের চুনকাম করে দঁওয়ার লজ্জায় ফেলার ঘোষণা আগেই দিয়ে রেখেছেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তোজা।
মিরপুরে দিন রাতের ম্যাচটি শুরু হবে দুপুর সাড়ে ১২টায়। মাশরাফির দলের কাছে টানা চতুর্থ ম্যাচে হার এড়ানোর লক্ষ্য জিম্বাবুয়ের। কিন্তু তাদের কোনো সুযোগ দেওয়ার বিন্দুমাত্র মানসিকতা নেই টাইগারদের।
প্রবল গর্জনে চতুর্থ ওয়ানডে জিতে প্রতিপক্ষকে বাংলাওয়াশ করার সব আত্মবিশ্বাসই কাজ করছে বাংলাদেশ দলে। তাতে বিশ্বকাপের আগে টানা ১২ ম্যাচ হারার কষ্ট হীনমণ্যতা থেকে বিশ্বকাপের আগে বেরিয়ে আসার সুযোগ থাকছে দারুণ প্রতিভাবান টাইগার দলের সামনে।
একটা ধাপ বাকি থাকবে চতুর্থ ওয়ানডে জিতলে। কিন্তু সারা বিশ্ব আজ ডুবে আছে মাত্র ২৬ বছর হবার ২ দিন আগে চির অজনায় চলে যাওয়ার বেদনায়। দুদিন আগে শেফিল্ড শিল্ডে খেলার সময় সিন অ্যাবটের বাউন্সারে মাথায় আঘাত পান হিউজেস। মাঠে লুটিয়ে পড়ার পর সিডনির হাসপাতালে আজ মৃত ঘোষণা করা হয়েছে তাকে। মাঠে কোমায় চলে যাওয়ার পর আর নতুন জীবনে ফিরে আসা হয়নি তাকে হারানোর বেদনা ক্রিকেট বিশ্ব অন্য সবার মতো বাংলাদেশ আর জিম্বাবুয়ের মনে ঝড় তুলেছে। কেউই মেন নিতে পারছেন না। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড ঘোসণা দিয়েছে ম্যাচের আগে হিউজের জন্য
এক মিনিট নিরাবতা পালনের। সেই নিরাবতা পালনের পর সরব হয়ে উঠবে ক্রিকেট পাগল বাংলাদেশ। শেষ তিন ম্যাচে সুযোগ না দিয়েই জয় তুলে নিয়েছে মাশরাফিরা। তামিম, এনামুলের জুটি আগুণ ঝড়াচ্ছে। সাকিব দুর্দান্ত।
মুশফিকের ব্যাটেও ওঠে ঝড়। মিডল অর্ডারের ব্যাটিংয়ের দূর্ভাবনা থেকে কিছুটা মুক্তি পেয়েছেন মাশরাফি ও টিম ম্যানেজমেন্ট।
পেস আর স্পিন মিলিয়ে বোলিং নিয়ে এয অভিযোগটা ছিলো মাশরাফির, তাও নিয়ে মাশরাফির কিছুটা অভিযোগ ছিলো তৃতীয় ওয়ানডের আগে। কিন্তু ৬ উইকেটে ২৯৭ রান তোলার পর জিম্বাবুয়েকে ১২৪ রানে হারিয়ে সিরিজ জয় নিশ্চিত করেছে টাইগাররা। স্পিনার আরাফাত সানি টানা দুই ম্যাচে চার উইকেট নিয়ে জায়গাটা ধরে রাখার জোর দাবি তাঁর। সামনে বিশ্বকাপ। এখন সিরিজ জিতে ফেলার পর কি পরীক্ষা নিরীক্ষা হবে কিছু? হবে বলেই সানি এই ম্যাচে বিশ্রামে থাকতে পারেন। তার জায়গায় তরুণ বা হাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম ফিরবেন তেমনটা হলে। আর আগের ম্যাচ খেলা মিডিয়াম পেসার শফিউল ইসলামকে জায়গাটা ছেড়ে দিতে হতে পারে। গেলো বছরের পর আবার ওয়ানডে একাদশে ফেরার অপেক্ষায় আছেন তিনি। সব মিলিয়ে বাংলাদেশ এখন নির্ভার। জিম্বাবুয়ে সন্ত্রস্ত্র। প্রবল হুঙ্কারে তাদের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে টানা চতুর্থ জয় তুলে নেয়ার অপেক্ষায় এখন টাইগাররা। আরো একটি জয়ের প্রতিক্ষা ১৬ কোটি মানুষের ক্রিকেট পাগল দেশেরও। তাহলে প্রতিপক্ষকে সব ম্যাচে হারানোর হাতছানি থেকে মাত্র এক পা দূরে গিয়ে দাঁড়াবে মাশরাফির টাইগার দল।