সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

শিশুটির চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহায়তা চায় তার পরিবার

Mirsarai pic, 31.08

নাছির উদ্দিন ঃ
সামান্য একটি সড়ক দূর্ঘটনা। যার ফলে একটি পা হারাতে বসেেেছ হতদরিদ্র পরিবারের এই শিশুটি। গত ২ আগস্ট বারইয়ারহাট পৌর এলাকার মেহেদি নগর সড়কে সিএনজি অটোরিক্সার ধাক্কা লেগে গুরতর আহত হয় ৫ বছর বয়সের শিশু আরমান, দুর্ঘটনায় আরমানের ডান পায়ের হাড় বেঙ্গে যায়। পরে স্থনীয়রা উদ্ধার করে নিকটবর্তী হাসপাতালে নিয়ে গেলে অবস্থা আশংকাজনক দেখে ডা. তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজে প্রেরণ করেন।
এদিকে টাকার অভাবে মেডিকেলে সামন্য চিকিৎসা নিয়ে ছোট্ট এই শিশুকে বাড়িয়ে নিয়ে আসে তাঁর পরিবার। ঠিকমত ঔষুধ না খাওয়াতে না পারায় আরমানের পায়ে পঁচন শুরু হয়েছে। সড়ক দুর্ঘটনায় গুরতর আহত শিশুর অসহায় পরিবারের পাশে দাঁড়ালেন জোরারগঞ্জ থানার এএসআই এনায়েত উল্লাহ, মো. ইমরান ও আজাদ হোসেন।
তাঁরা চিকিৎসার যাবতীয় খোঁজ খবর নিয়ে আরমানের চিকিৎসার জন্য ‘ প্রাথমিক ভাবে তার মা’ ছকিনা বেগমের হাতে নগ টাকা ও যোগাযোগের জন্য একটি মোবাইল সেট তুলে দেন এবং পরবর্তীতে আরো সহযোগিতা করার আস্বস্ত করেন। ২নং হিঙ্গুলী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন হারুন বলেন, বিষয়টি আমি অবগত হয়েছি। প্রাথমিকভাবে আমি কিছু আর্থিক সহয়তা করেছি। আরোসহযোগিতা করে যাব। তিনি এও বলেন, সমাজের সামর্থবান ব্যক্তিরাও যেন এই মহৎকাজে অংশ নিয়ে ছেলেটির চিকিৎসায় এগিয়ে আসেন। আরমানের বাড়ী উপজেলার ১০ নং মিঠানালা উইনিয়নের বোর্ড অফিস এলাকায়। তার বারা টিটু বারইয়ারহাটে বাশেঁর শ্রমিকের কাজ করেন। সে সুবাদে পরিবার নিয়ে তিনি মেহেদী নগর এলাকায় ভাড়া থাকেন। টিটিু বলেন, যে খানে আমার দৈনিক নুন আনতে পানতা পুরায় সেখানে আমি কিভাবে ছেলেকে মিডিক্যালে ভর্তি রেখে চিকিৎসা করাবো। শিশুটির জন্য চিকিৎসা সহায়তা পাঠাতে চাইলে নিন্মোক্ত নাম্বারে বিকাশ করতে পারবেন। ০১৮২৫-২৯৪০০০- (পার্সোনাল) স্থানীয় এক সংবাদ কর্মী এই শিশুটির জন্য চিকিৎসা সহায়তা সংগ্রহ করছেন।