শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ৪ আষাঢ় ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

লতিফ সিদ্দিকীর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

latif sddik_40364

 

মহানবী হযরত মোহাম্মদ (স.), হজ ও তবলীগ জামাত নিয়ে কটূক্তির অভিযোগে মন্ত্রিত্ব হারানো ও আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কৃত আবদুল লতিফ সিদ্দিকীর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন আদালত। ঢাকা মহানগর হাকিম মো. ইউনুস খান বৃহস্পতিবার এ পরোয়ানা জারি করেন।

আদালতে হাজির না হওয়ায় বৃহস্পতিবার মামলার বাদিপক্ষ লতিফ সিদ্দিকীর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির আবেদন করেন। আদালত শুনানি শেষে তা মঞ্জুর করেন। পাশাপাশি গ্রেফতারি পরোয়ানা তামিলের প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য ১৪ জানুয়ারি দিন ধার্য করেন।

ইসলাম নিয়ে লতিফ সিদ্দিকীর কটুক্তির প্রেক্ষিতে ইসলাম অবমাননার অভিযোগে মো. বাদল নামে এক ব্যক্তি ১ অক্টোবর ঢাকা মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) আদালতে এ মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার এজাহার থেকে জানা গেছে, এ বছরের ২৯ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্কের জ্যাকসন হাইটসে টাঙ্গাইল সমিতি আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় বক্তৃতার একপর্যায়ে লতিফ সিদ্দিকী বলেন, ‘আমি কিন্তু হজ আর তবলীগ জামাতের ঘোরতর বিরোধী। হজে যে কত ম্যানপাওয়ার নষ্ট হয়। হজের জন্য ২০ লাখ লোক আজ সৌদি আরব গিয়েছে। তাদের কোনো কাম নাই। তাদের কোনো প্রোডাকশন নাই। শুধু রিডাকশন করতেছে। শুধু খাচ্ছে আর দেশের টাকা নিয়ে ওখানে দিয়ে আসছে। অ্যাভারেজে যদি বাংলাদেশ থেকে এক লাখ লোক হজে যায় প্রত্যেকের পাঁচ লাখ টাকা করে পাঁচশ’ কোটি টাকা খরচ হয়।’

মহানবী হযরত মোহাম্মদ (স.) সম্পর্কে লতিফ সিদ্দিকী আরও বলেন, ‘আবদুল্লাহর পুত্র মোহাম্মদ (স.) চিন্তা করল এ জাজিরাতুল আরবের লোকেরা কীভাবে চলবে। তারা তো ছিল ডাকাত। তখন একটা ব্যবস্থা করল যে, তার অনুসারীরা প্রতিবছর একবার একসঙ্গে মিলিত হবে এবং এর মধ্যে দিয়ে একটা আয়ের ব্যবস্থা হবে।’