শুক্রবার, ২৫ জুন ২০২১, ১১ আষাঢ় ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

প্রধানমন্ত্রী বিদেশে গিয়েও মিথ্যাচার করছেন

fokrul islam 02_33606

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিদেশে গিয়েও বাংলাদেশের জনগণ ও জামায়াতে ইসলামীর নামে মিথ্যাচার করছেন বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

জাতীয় প্রেস ক্লাবে আজ রবিবার বিকেলে ‘প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান সম্মননা ও জিয়া স্বর্ণ পদক-২০১৪’ প্রদান এবং ‘বর্তমান প্রেক্ষাপটে দেশ প্রেমিক জনগণের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এ অভিযোগ করেন। জিয়া সাংস্কৃতিক সংগঠন (জিসাস) এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

জিসাসের সভাপতি আবু হাশেম রানার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন, বিএনপি সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক গাজী মাজহারুল আনোয়ার, বিএনপি নেতা সাইফুল প্রমুখ।

ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, গত ৫ জানুয়ারি অবৈধ ও জোরজবরদস্তি নির্বাচনের বিরুদ্ধে এ দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগণ প্রতিরোধ গড়ে তোলেন। শেখ হাসিনা এখন জোর করে ক্ষমতায় আছেন। কিন্তু বিদেশের মাটিতে তিনি জনগণ সম্পর্কে মিথ্যাচার করছেন। এমনকি জামায়াত ইসলামীকে সন্ত্রাসী বলে অভিহিত করেছেন। আমি তার এ মিথ্যাচারের তীব্র নিন্দা জানায়।

বিএনপিকে উদার গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক দল দাবি করে মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, বিএনপি কোনো সন্ত্রাসী দল না বরং গণতান্ত্রিক দল। আওয়ামী লীগই একটা সন্ত্রাসী দল। তারা জোর করে ক্ষমতায় থাকার জন্য শুধু দেশে নয় বিদেশেও মিথ্যাচার করে বেরাচ্ছে।

বিডি-প্রতিদিন/২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৪/মাহবুব

ফখরুল বলেন, এ অবৈধ সরকার যতই নির্যাতন করুক মানুষ গণতন্ত্রের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। মানুষ তার মৌলিক অধিকার, ভোটের অধিকার ফিরিয়ে আনতে অবিলম্বে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবে। যার মাধ্যমে সরকার ক্ষমতা ছেড়ে দিয়ে নির্বাচন দিতে বাধ্য হবে।

মির্জা ফখরুল হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, ইতিহাসে কোনো স্বৈরাচার শাসক টিকে থাকতে পারেনি। এ সরকারও পারবে না। তাই সাংস্কৃতির মাধ্যমে সারা দেশে বিপ্লব গড়ে তুলতে হবে।