রবিবার, ১৩ জুন ২০২১, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয় প্রধানমন্ত্রীর অধীন

sheikh-hasina_36335

দেশের ইতিহাসে প্রথম বরখাস্ত হওয়া মন্ত্রী হিসেবে বিদায় নিলেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী আবদুল লতিফ সিদ্দিকী। আর তাকে মন্ত্রিত্ব থেকে অব্যাহতি দিয়ে রোববার প্রজ্ঞাপন জারি করার পর এ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে অন্য কাউকে অর্পণ না করা পর্যন্ত রুলস অব বিজনেস, ১৯৯৬-এর বিধি ৩(৪) অনুযায়ী এ মন্ত্রণালয় সরাসরি প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্বে থাকছে। মন্ত্রণালয়ের অধীন তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী হিসেবে বহাল থাকছেন জুনাইদ আহমেদ পলক। সংশ্লিষ্ট মতে, ময়দানে সরব থাকলেও বয়স আর অভিজ্ঞতায় পিছিয়ে থাকায় প্রতিমন্ত্রী থেকে পূর্ণ মন্ত্রিত্ব পাচ্ছেন না পলক।

সূত্রটি আরো জানায়, গত দুই বছরেরও কম সময়ে সরকারের দিক থেকে অগ্রাধিকার দেয়ার পাশাপাশি সবচেয়ে বেশি ‘হস্তক্ষেপ’ হওয়া ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের নতুন মুখের দেখা পেতে এবার একটু বিলম্ব হতে পারে।

উদ্ভূত অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি সামাল দেয়ার পর দ্বিতীয়বারের মতো এই খাতের দায়িত্ব পেতে পারেন একজন নারী। তবে তিনি সাহারা খাতুন নন, তিনি হতে পারেন সাবেক পররাষ্ট্র মন্ত্রী দীপু মনি। দু’বছরেরও কম সময়ে চার দফা দায়িত্ব পরিবর্তনের পালাবদলে পঞ্চম ব্যক্তি হিসেবে তাকেই দেয়া হতে পারে এই গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব। তবে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে চাননি দায়িত্বশীল সূত্র।

এর আগে বর্তমান সরকারের মেয়াদে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন রাজিউদ্দিন আহমেদ রাজু, সাহারা খাতুন ও রাশেদ খান মেনন। আর লতিফ সিদ্দিকীর বরখাস্তের মাধ্যমে এই মন্ত্রণালয়ে একেকজন মন্ত্রীর দায়িত্ব পালনের গড়সীমা দাঁড়িয়েছে পাঁচ মাসেরও কম।