বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ১৩ শ্রাবণ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

ঈদে আসছে কবি মুসা”র লেখায় শিল্পী সালমার কন্ঠে ‌‌”বন্ধুরে তুই পরান পাখি”


মনির উদ্দিন মান্না :: বাংলাদেশের বিখ্যাত জনপ্রিয় ফোক সঙ্গীত শিল্পী ক্লোজআপ ওয়ান তারকা সালমা এবার কন্ঠ দিলেন কবি ও গীতিকার মুসা”র অনবদ্য লেখা গানে, গানটিতে সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন ফোক মাল্টিমিডিয়ার ব্যানারে এস, রুহুল এবং গানটির পরিচালক ছিলেন তরুন প্রজন্মের মেধাবী নির্মাতা শুভ শীল। বরেণ্য কবি ও কথা সাহিত্যিক মুহাম্মদ মুসা”র বহু প্রতীক্ষিত লেখা ফোক গান “বন্ধুরে তুই পরান পাখি তোরে ছাড়া বাঁচিনা” কথামালায় এস,রুহুল এর মিউজিক ও সুরে গানের শুটিং শেষ করেছেন ও চলচিত্র নির্মাতা শুভ শীল। জানা যায় পবিত্র ঈদুল আযহায় বিভিন্ন টিভি চ্যানেল ইউটিউব চ্যানেলেসহ ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম গুলোতে গানটি রিলিজ করা হবে, গানটির বিষয় নিয়ে কন্ঠ শিল্পী সালমার সাথে কথা বললে তিনি আমাদের কে জানান আমি আমার লাইফে অনেক গানে কন্ঠ দিয়েছি বরাবর এর মতো এবারও একটি নতুন গানে শুনামধন্য গীতিকারের লেখায় একটি চমৎকার গানে কন্ঠ দিয়েছি গানটির কথা গুলো আমার খুবই ভালো লাগলো এবং আমি যতটুকু পেরেছি ভালো গাওয়ার চেষ্টা করেছি। “আমার মনে হলো আমার গাওয়া এযাবৎকালের সবচেয়ে সেরা একটা গান তৈরি হলো এবার, খুব স্বতঃস্ফূর্ত ভাবে গানটি পরিবেশন করলাম আশা করি দর্শকরা গানটিকে ভালোবেসে গ্রহন করবেন” কবি ও গীতিকার মুহাম্মদ মুসা”র বেশ কিছু গান ব্যাপক দর্শক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। দেশের গানের মধ্যে বাংলাদেশের সেরা দশটি গানের মধ্যে তার গান গুলো স্থান পেয়েছে” হৃদয়ে বাংলাদেশ “একুশ আমার রণতূর্য ” বাংলাদেশ প্রিয় মাতৃভূমি বাংলাদেশ,”মাটির মানুষ শুন্যে থাকে” তুমি আমার পদ্মপাতার জল ” মা ছাড়া কেউ ভবে” প্রেমের কাঙাল” ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। দেশের জনপ্রিয় গুণী শিল্পীরা তার গানে রেখেছেন অনবদ্য স্বাক্ষর। গানটির মিউজিক ও সুর করেছেন এস রুহুল আমিন তিনি বলেন আমি নিজেই অনেক যত্ন করে এটির সুর ও সংগীতের কাজ করেছি, আর কবি মুসা”র লেখা লিরিক্সগুলো অসাধারণ। “আমি আশা করছি সংগীতপ্রেমীদের মনে গানটি দাগ কাটবে স্থায়িত্ব করে নেবে অমলিন, গানের প্রতিটি শব্দ হৃদয় ছুঁয়ে যাবে গানের মিউজিক ভিডিওর দৃশ্যধারণেও গানের কথাকে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে”
গানটির বিষয় নিয়ে পরিচালক শুভ শীলের সাথে কথা বললে তিনি গণমাধ্যমকে জানান যে “সবাই খুবই ভালো করেছে আশা করি দর্শকরা ভালো কিছু পেতে যাচ্ছেন দর্শকরা গানটি উপভোগ করে খুশি হলেই আমরা সার্থক হবো ” তিনি আরো জানান সবাই সব সময় আমাদের পাশে থাকবেন আমরা আপনাদের কে প্রতিনিয়ত নতুন গান উপহার দেওয়ার চেষ্টা করবো। গানের বিষয়ে কবি ও গীতিকার মুসা বলেন “গান প্রথমত আমি গাইবো বলে গান লিখি আমার বোধশক্তি আমাকে লেখায়। কোনো এক অদ্ভুত অনুভূতি আমার মধ্যে কাজ করে তা আমাকে লেখার জন্য তাড়িয়ে বেড়ায়। আমার অভূতপূর্ব দৃষ্টিভঙ্গি আমার চিন্তার শক্তিতে রূপান্তরিত হয়ে আমাকে লেখায়। আমার কষ্ট আমাকে লেখায়। আমার আবেগ আমাকে লেখায়। নানান বেদনায় আনন্দ অশ্রুর ক্ষতবিক্ষত মন আমাকে লেখায়। জীবনবোধের রক্তক্ষরণ হয়ে আমাকে লেখায় কখনো নিঃসঙ্গতার আনন্দ-বিরহ, আধ্যাত্মিকতা ধারণ করে আমাকে লেখায়। গানের সাফল্য ব্যর্থতা আমার কাছে মূখ্য নহে কোন ঐশ্বরিক আমাকে চিত্তাকর্ষক করে তোলে না। গান যদি আমার মনস্তত্বের হৃদয়ের অতল তল স্পর্শ করে আমার মনের প্রশান্তি এনে দেয় তাতে আমি সার্থক আনন্দদায়ক।