শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২১ মাঘ ১৪২৯খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

আম্পায়ারের কুশপুত্তলিকা দাহ

image_200565.bangladeshi+cricket+fan_19032015_00+(3)0007

 

কোয়ার্টার ফাইনালে ভারতের কাছে হেরে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ মিশন শেষ হওয়ার জন্য আম্পায়ারদের বিতর্কিত সিদ্ধান্তকে দায়ী করে তাদের কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে বিক্ষুব্ধ টাইগার সমর্থকরা।ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি চত্বরে আলিম দার ও ইয়ান গৌল্ডের কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে টাইগারভক্তরা। এ সময় তারা আম্পায়ারদের উদ্দেশ্য করে নানা রকম স্লোগান দেন। এখানে মিলিত হওয়া সকলের অভিযোগ একই, ‘আম্পায়ররাই হারিয়েছে বাংলাদেশকে। ওরা (আম্পায়ার) আসলে ভারতের দালাল। বাজে আম্পায়ারিংয়ের জন্য আইসিসির কাছে লিখিত অভিযোগ জানানো উচিত বাংলাদেশের।’
বিতর্কের শুরু হয় ভারতীয় ব্যাটিংয়ের সূচনা থেকে। রুবেল হোসেনের একটি ফুলটস ডেলিভারি রোহিত শর্মা ফুল করতে গিয়ে ডিপ মিড উইকেটে দাঁড়িয়ে থাকা ফিল্ডার ইমরুল কায়েসের হাতে ধরা পড়ে। কিন্তু আউটের সিদ্ধান্ত না দিয়ে পাকিস্তানি আম্পায়ার আলিম দারের ইঙ্গিতে অস্ট্রেলিয়ান আম্পায়ার ইয়ান গৌল্ড ‘নো’ বল ডেকে বসলেন। টিভি আম্পায়ারের প্রয়োজনীয়তাও অনুভব করলেন না তারা। কারণ হিসেবে দেখালেন কোমরের ওপরের উচ্চতায় বল ছোড়া।
এর পর বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ে মাহমুদউল্লাহকে দেয়া হয় বিতর্কিত আউটের সিদ্ধান্ত। মোহাম্মদ সামির করা ১৭তম ওভারের চতুর্থ বলে রিয়াদ সজোরে হাঁকালে বলটি থার্ডম্যান অঞ্চল দিয়ে প্রায় ছক্কা হতে যাচ্ছিল, কিন্তু সেটা ধরে ফেলেন শিখর ধাওয়ান।তবে, ধাওয়ান ক্যাচ ধরলেও বল লুফে নেওয়ার সময় তার পা বাউন্ডারি ছুঁইয়ে ফেলছিল বলে আম্পায়াররা দায়সারার জন্য রিপ্লে দেখেন।দায়সারার জন্য রিপ্লে দেখা হলেও ধাওয়ানের পা বাউন্ডারি ছুঁয়ে ফেলেছিল কিনা তা একেবারে দূর থেকে দেখেন থার্ড আম্পায়ার। ভারতের পক্ষে ‍যায় এমন রিপ্লেগুলো অনেক কাছ থেকে (ক্লোজলি) দেখা হলেও রিয়াদের আউটের রিপ্লেটি মাত্র দু’বার এবং অনেক দূর থেকে দেখেই সিদ্ধান্ত দিয়ে দেন ইংলিশ থার্ড আম্পায়ার স্টিভ ডেভিস।আম্পায়ারের এই সিদ্ধান্তে রিয়াদ সাজঘরের পথ ধরলেও শুরু হয় বিতর্ক। টাইগার-বধে এমন আম্পায়ারিং যেমন ক্ষুব্ধ করেছে টাইগার ক্রিকেটপ্রেমীদের, তেমনি বিস্মিত করেছে শেন ওয়ার্ন, ভিভিএস লক্ষ্মণ, অর্জুন রামপাল, শোয়েব আখতারের মতো তারকাদেরও। টুইটারে প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছেন তারাও।