Sunday, September 23Welcome khabarica24 Online

মীরসরাই

মিরসরাইয়ে তীব্রতর হচ্ছে বিএনপির আন্দোলন

মিরসরাইয়ে তীব্রতর হচ্ছে বিএনপির আন্দোলন

নিজস্ব প্রতিনিধি চলমান রাজনৈতিক অস্থিরতা ও বর্তমান সরকারের অগণতান্ত্রিক পক্রিয়ায় একপেশে নির্বাচনের মধ্য দিয়ে ক্ষমতায় যাওয়ার অবৈধ প্রচেষ্টাকে জনগণের সামনে তুলে ধরতে মিরসরাই উপজেলা বিএনপির দফায় দফায় বিক্ষোভ কর্মসূচীর মাধ্যমে আন্দোলন তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে। অব্যাহত আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় আজ শনিবার মিরসরাই উপজেলা বিএনপির উদ্যোগে উপজেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি ও উত্তরজেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নুরুল আমিনের নেতৃত্বে ও উপজেলা বিএনপির সর্বস্তরের নেতাদের অংশগ্রহণে এক বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিলটি বিএনপি কার্যালয় থেকে শুরু হয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক দিয়ে মাদ্রাসা মার্কেট সড়ক ও মিরসরাই কলেজ সড়ক প্রদক্ষিণ করে উপজেলা কোর্টরোড সড়কের মাথায় এসে শেষ হয়। বিক্ষোভ মিছিলে অংশ নেন উপজেলা বিএনপি নেতা নুরুল আফছার চেয়ারম্যান, জেলা বিএনপির সদস্য গিয়াস উদ্দিন, আবুল কাশেম, ফারুক আহম্মদ, আনোয়ার হোসেন, আমজা
মীরসরাইয়ে জামায়াত-শিবিরের ৪ কর্মী গ্রেপ্তার : পুলিশের বিরুদ্ধে ঘরে হামলার অভিযোগ

মীরসরাইয়ে জামায়াত-শিবিরের ৪ কর্মী গ্রেপ্তার : পুলিশের বিরুদ্ধে ঘরে হামলার অভিযোগ

মীরসরাই প্রতিনিধি : চট্টগ্রামের মীরসরাইয়ে জামায়াত-শিবিরের চার কর্মীকে গ্রেপ্তার করেছে জোরারগঞ্জ থানা পুলিশ। শুক্রবার রাতে উপজেলার কয়েকটি স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতরা হল শরিফুল ইসলাম, ইমামুল ইসলাম, নুরুল আমিন ভুঁইয়া ও ফিরোজ খান। উপজেলার নাহেরপুর, বারইয়ারহাট পৌরসভা ও পশ্চিম জোয়ার এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। এদিকে পুলিশের বিরুদ্ধে ঘরে হামলার অভিযোগ উঠেছে এবং জামায়াত কর্মীকে না পেয়ে মেহমান নিয়ে আসারও অভিযোগ পাওয়া গেছে। মীরসরাই আন্তঃমাদ্রাসা ফেডারেশনের সভাপতি ও নাহেরপুর ইসলামীয়া দাখিল মাদ্রাসার সুপার মো ছলিম উদ্দিন অভিযোগ করেন, শুক্রবার রাতে পুলিশ তার ঘরে হামলা করে। এসময় ঘরে তিনটি দরজা ভেঙ্গে ফেলে। আমাকে না পেয়ে আমার বাড়িতে বেড়াতে আসা মেহমান ইমামুল ইসলাম ও আমার ভাতিজা শরিফুল ইসলামকে পুলিশ নিয়ে যায়। তারা কোন ধরনের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত নয় বলে তিনি দাবী ক
মীরসরাইয়ে ছাত্র সংগ্রাম কমিটি গঠন

মীরসরাইয়ে ছাত্র সংগ্রাম কমিটি গঠন

মীরসরাই প্রতিনিধি : চট্টগ্রামের মীরসরাইয়ে ১৮ দলীয় জোটের ছাত্র সংগ্রাম কমিটি গঠন করা হয়েছে। শনিবার বিএনপির বারইয়ারহাট কার্যালয়ে এ কমিটি গঠন করা হয়। উপজেলা ছাত্র দলের সিনিয়র যুগ্ন সম্পাদক মোজাম্মেল হোসেনকে আহবায়ক ও উপজেলা শিবিরের সভাপতি তৌহিদুল ইসলামকে সদস্য সচিব করে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়। ছাত্রদল-শিবিরের ১২ জনকে যুগ্ন আহবায়ক ও ১৭ জনকে সদস্য করে  কমিটির সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করবেন চট্টগ্রাম উত্তর জেলা ছাত্রদলের যুগ্ন আহবায়ক শওকত আকবর সোহাগ। সংগ্রাম কমিটির আহবায়ক মোজাম্মেল হোসেন বলেন, বর্তমান সরকারককে হটাতে আন্দোলন সংগ্রাম আরো বেগবান করতে ১৮ দলীয় জোটের সংগ্রাম কমিটির পাশাপাশি ছাত্র সংগ্রাম কমিটি রাজপথে ভূমিকা পালন করবে।
মীরসরাইতে পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিল

মীরসরাইতে পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিল

মীরসরাই প্রতিনিধি : মীরসরাই উপজেলার পৌরসদরে পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে স্থানীয় পৌরবিএনপি এক বিক্ষোভ মিছিল করে বিকাল ৪টায়।  মীরসরাই পৌর বিএনপির উদ্যোগে বেগম জিয়ার আহ্বানে দেশব্যাপী দলীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে মীরসরাই সদরস্থ দলীয় কার্যালয় থেকে মিছিল শুরু করে মহাসড়ক প্রদক্ষিণকালে বাধা দেয় পুলিশ। এসময় নেতাকর্মীরা পাল্টা শ্লোগান তুলে বাধা উপেক্ষা করার এক পর্যায়ে পুলিশ রাস্তা ছেড়ে দিলে মিছিলটি কলেজ রোড প্রদক্ষিণ করে দলীয় কার্যালয়ে গিয়ে সমাবেশ করে। সমাবেশে বক্তব্য রাখে পৌর বিএনপির আহ্বায়ক নাছির উদ্দিন, সচিব রফিকুল পারভেছ, মহিউদ্দিন, নুর মোহাম্মদ, নুরুল আবছার মিয়া, শেখ আহাম্মদ, কামরুল আহসান লিটন, জসিম উদ্দিন, ছাদেক মিয়া, আমরান হোসেন প্রমুখ। আবার বারইয়াহাট পৌর বিএনপির সভাপতি এম মাঈনউদ্দিন লিটন ও কমিশনার সাইদুল ইসলাম মামুনের নেতৃত্বে বারইয়াহাট বাজারে ও পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে একটি বিক্ষোভ
মীরসরাইতে বাসে নাশকমূলক অগ্নিসংযোগ

মীরসরাইতে বাসে নাশকমূলক অগ্নিসংযোগ

মীরসরাই প্রতিনিধি : মীরসরাই উপজেলার বারইয়াহাট বাজারে রহস্যজনক নাশকতামূলক আগুনে একটি যাত্রীবাহি বাস পুড়ে ভস্মিভূত হয়ে যায়। বুধবার উপজেলার বারইয়ারহাটের রোজিনা হোটেলের সামনে দুপুর দেড়টায় এ অগ্নি সংযোগের ঘটনা ঘটে। আগুনে পুড়ে গেছে চয়েস পরিবহন নামে বাস (চট্টমেট্রো জ-১১-০০৮৮)। আগুনের সূত্রপাত কোথা থেকে হয়েছে সে ব্যাপারে নিশ্চিত করে কেউ কিছু জানাতে পারেনি। বাসের চালক নুর মোহাম্মদ ও চয়েস এর লাইনম্যান আবু ইউসুফ জানায় কেউ বা কাহারা বাসটির ভিতরে পেট্রোল দিয়ে আগুন ধরিয়ে পালিয়ে যায়। যার দরুন দ্রুত বাসটি দাউ দাউ করে জ্বলে উঠে আর সবাই আগুন দেখে বুঝে উঠার আগেই পুরো বাস জুড়ে লেগে যায় আগুন। কিছুক্ষনের মধ্যেই ভস্মিভূত হয়ে যায় বাসটি। ভীতি সৃষ্টি ও নাশকতার উদ্দেশ্যে কেউ এ অগ্নিসংযোগের ঘটিয়েছে বলে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা ধারণা করছে। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, বাসটি স্টপে দাঁড় করিয়ে চালক ও হেলপার দুপুর
হরতালের সমর্থনে মীরসরাই পৌরসভা বি.এন.পি. এর বিশাল শোডাউন

হরতালের সমর্থনে মীরসরাই পৌরসভা বি.এন.পি. এর বিশাল শোডাউন

প্রেস বিজ্ঞপ্তি : ১৮ দল আহূত টানা ৬০ ঘন্টা হরতালের দ্বিতীয় দিনে হরতালের সমর্থনে মীরসরাই পৌরসভা বি.এন.পি. এর উদ্যোগে বিশাল শোডাঊন করা হয়। মীরসরাই পৌরসভা বি.এন.পি. সভাপতি নাসির উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক লায়ন রফিকুল ইসলাম পারভেজ এর নেতৃত্বে অনষ্ঠিত শোডাউনে পেীর বি.এন.পি, যুবদল ও ছাত্রদলের সকল নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। শোডাউন পরবর্তী সমাবেশে বক্তারা কেন্দ্রীয় বি.এন.পি. নেতা প্রফেসর কামাল উদ্দিন চেীধুরীর নেতৃত্বে আন্দোলন সংগ্রামের মাধ্যমে এই জালিম সরকারকে বিতাড়িত করে একটি নিরপেক্ষ, নির্দলীয সরকারের মাধ্যমে আগামী জাতীয নির্বাচন অনুষ্ঠানে বাধ্য করা হবে বলে জোর হুশিয়ারি উচ্চারণ করেন।
মীরসরাইয়ে বিএনপি-জামায়াত সমর্থীত তিনটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভাংচুর, লুটপাট

মীরসরাইয়ে বিএনপি-জামায়াত সমর্থীত তিনটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভাংচুর, লুটপাট

মীরসরাই প্রতিনিধি : মীরসরাইয়ের নিজামপুর রেল ষ্টেশন এলাকায় বিএনপি জামায়াত সমর্থীত তিনটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ পাওয়া গেছে ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে। রোববার রাতে এ ঘটনা ঘটে। উপজেলা শিবিরের সভাপতি তৌহিদুল ইসলাম বলেন, ছাত্রলীগের কর্মীরা রাতের আঁধারে নিজামপুর রেল ষ্টেশন এলাকায় অবস্থিত জামায়াত কর্মী আব্দুল হান্নানের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ বিএনপি সমর্থীত তিনটি প্রতিষ্ঠান ভাংচুর করে। এসময় তারা ব্যাপক লুটপাট করে সবকিছু নিয়ে যায়। উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক (একাংশ) আব্দুল আউয়াল তুহিন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা ও লুটপাটের ঘটনায় ছাত্রলীগের কর্মীরা জড়িত নয় বলে দাবী করেন।
মীরসরাইতে ৬ ছাত্রলীগকর্মীর হাত ও পায়ের রগ কেটে দিয়েছে শিবিরকর্মীরা

মীরসরাইতে ৬ ছাত্রলীগকর্মীর হাত ও পায়ের রগ কেটে দিয়েছে শিবিরকর্মীরা

মীরসরাই প্রতিনিধি : চট্টগ্রামের মীরসরাই উপজেলার নিজামপুরে ৬ ছাত্রলীগ কর্মীর হাত ও পায়ের রগ কেটে দিয়েছে হরতালের সমর্থনকারী বিক্ষুব্ধ শিবির কর্মীরা। গতকাল রবিবার হরতালের প্রথম দিন পেরিয়ে সন্ধ্যা ৭টায় নিজামপুর ষ্টেশান এলাকায় উক্ত ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায় ছাত্রশিবিরের কর্মীরা রাস্তায় বিক্ষিপ্ত পিকেটিং এর এক পর্যায়ে দা ছুরি ও কিরিছ নিয়ে নিজামপুর ষ্টেশান এলাকায় দোকানে বসে থাকা দুই ছাত্রলীগকর্মীর দোকানে অতর্কিত হামলা করে। এসময় স্থানীয় ছাত্রলীগ কর্মী রিপন (২২), রানা (২৮), ফারুক (২৫), সোহেল (২৩), লিটন (২৬) ও জামাল (২৪) কে গুরুতর জখম করে চলে যায়। এক পর্যায়ে এলাকাবাসী ৩জনকে উদ্ধার করে মীরসরাই সদরস্থ মাতৃকা হাসপাতালে ভর্তি করায়। এসময় উপজেলা চেয়ারম্যান ও থানার ওসি ইমতিয়াজ ভূঞা তাদের এসে দেখে যান ও ঘটনার বিবরণ জানেন।