Tuesday, July 25Welcome khabarica24 Online

বিনোদন

স্নিগ্ধ টয়া

স্নিগ্ধ টয়া

বিনোদন ডেস্ক :মুমতাহিনা চৌধুরী টয়া। বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রীদের অন্যতম তিনি। স্নিগ্ধ রূপের সৌন্দর্য আর অভিনয় গুণে বর্তমান প্রজন্মের কাছে প্রিয় মুখ এই অভিনেত্রী। শোবিজে পা রাখার পর একটি মুঠোফোনের বিজ্ঞাপনে কাজ করে সবার নজর কাড়েন টয়া। বেশ কিছু জনপ্রিয় নাটক, টেলিফিল্ম দর্শকদের উপহার দিয়েছেন তিনি। কিছুদিন আগে ‘লোকাল বাস’ শিরোনামের একটি গানে মডেল হয়ে পুনরায় আলোচনায় আসেন টয়া। এছাড়া সামাজিক অসঙ্গতি নিয়ে কথা বলেও আলোচনার জন্ম দিয়েছেন টয়া। সম্প্রতি বেশ কিছু স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে অভিনয় করে প্রশংসা কুড়িয়েছেন এ অভিনেত্রী। বর্তমানে টেলিভিশন নাটক এবং টেলিফিল্মের কাজ নিয়েই বেশি ব্যস্ত সময় পার করছেন তিনি। এই অভিনেত্রীকে নিয়ে সাজানো হয়েছে ফটো ফিচার।   মুমতাহিনা চৌধুরী টয়ার পৈত্রিক বাড়ি নোয়াখালী। তবে জন্ম ও বেড়ে ওঠা রাঙ্গামাটিতে   ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটি থেকে বি
পাঁচ সিনেমা নিয়ে আসছেন শাহরুখ

পাঁচ সিনেমা নিয়ে আসছেন শাহরুখ

খবরিকা ডেক্সঃ  বয়স ৫০ পেরিয়ে গিয়েছে অনেক দিন।  তবু এখনও বলিউডের বাদশা শাহরুখ খান।  শাহরুখের অনুরাগীদের জন্য রইল তার পরের ছবির খবর। ২০১৭ থেকে ২০১৯ সালের মধ্যে কিং খানের পাঁচটি বিগ বাজেট ফিল্মে অভিনয় করার খবর ঘুরছে বলিউডে। ১. জব হ্যারি মেট সেজাল শাহরুখকে সঙ্গে নিয়ে নিজের স্বপ্নের প্রকল্প শুরু করেছেন ইমতিয়াজ আলি।  তার ফিল্মই কিং খানের পরবর্তী ফিল্ম।  জব হ্যারি মেট সেজাল।  এই ছবিতে শাহরুখের বিপরীতে দেখা যাবে আনুশকা শর্মাকে।  শুটিং প্রায় শেষ।  একে একে প্রকাশ করা হচ্ছে মিনি ট্রেলার।  এই জুটিকে দেখার জন্য অধীর আগ্রহে রয়েছেন দর্শকরা।  ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে ৪ আগস্ট। ২. বামন চরিত্রে শাহরুখ শাহরুখের পরের প্রকল্প বেশ চ্যালেঞ্জিং।  ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই চ্যালেঞ্জ নিতে দেখা গিয়েছে কিং খানকে।  খলনায়কও কীভাবে ছবির নায়ক হয়ে উঠে সমস্ত সহানুভূতি কেড়ে নিতে পারে, তা দেখিয়ে দিয়েছে শাহরুখের ডর
সুদক্ষ নির্মাতা শিমুল সরকারের নির্মিত আধ্যাতিক কাহিনীর হৃদয়স্পর্শি এক নাটকের গল্প

সুদক্ষ নির্মাতা শিমুল সরকারের নির্মিত আধ্যাতিক কাহিনীর হৃদয়স্পর্শি এক নাটকের গল্প

মহাবিশ্বের স্রষ্টার প্রতি ভক্তি বা ভালোবাসাকে মানব জাতি যে নজরেই দেখুক না কেন, তাকে কি মানুষের প্রেমের সর্বোত্তম প্রতিভাসের বহিঃপ্রকাশ হিসাবে ব্যাখ্যার সুযোগ থাকেনা? হোক না স্রষ্টা বা ঈশ্বর, ভগবান বা আল্লাহ, জাতিতে হিন্দু বা মুসলিমদের, জৈনের বা খ্রিস্টানের, পরমাত্তায় বিশ্বাসীদের বা একেশ্বর বাদীদের, বহুশ্বরবাদীদের বা নিরীশ্বর বাদীদের, সর্বেশ্বর বাদীদের বা পৃথিবীর সকল আস্তিক বা নাস্তিকবাদীদের হৃদিপদ্মে বিরাজ করে শুধুই এক স্রষ্টা, কিন্তু ডাকা হচ্ছে বিভিন্ন নামের মাধ্যমে এবং ধর্মীয় পরিচয়ে। তাঁর প্রতি বিভিন্ন ধর্মের মানুষের ভক্তি প্রকাশের ভাষাটি ভিন্ন হতেই পারে কিন্তু প্রেমের গভীরতাটুকুকে তুলনা করে কাউকে আঘাত দিতে চাওয়াটাই হবে চরম ভুল। সাধক সন্ন্যাসীর জীবন কাহিনীর সমন্বয়ে তাঁদেরই গভীর আত্মার প্রেম ও ভালোবাসা কতটুকু সমৃদ্ধ বা শক্তিশালী তা গভীর ভাবে অভিনেতা ও নাট্যকার নজরুল ইসলাম তোফা তাঁ
স্বপ্নচারিণী স্পর্শিয়া

স্বপ্নচারিণী স্পর্শিয়া

বিনোদন ডেস্ক :অর্চিতা স্পর্শিয়া। মডেল-অভিনেত্রী ও একজন নির্মাতা। তিনি একজন ভালো পাঠকও বটে। বাবা-মায়ের সুবাদে বাড়িতে প্রচুর বই আসত আর সেখান থেকেই বই পড়ার অভ্যাস তৈরি হয় তার। আর এ অভ্যাসটা ছোটবেলা থেকেই তৈরি হয়েছে এই অভিনেত্রীর। পাশাপাশি সময়ের সঙ্গে সিনেমা দেখার অভ্যাস তৈরি হতে থাকে স্পর্শিয়ার। এক সময় ভেতরে ভেতরে হয়ে ওঠেন সিনেমাপ্রেমী। বই এবং সিনেমা স্পর্শিয়ার কল্পনার রাজ্য কয়েক গুণ বড় করে দেয়। ধীরে ধীরে তার স্বপ্নের গণ্ডি বাড়তে থাকে। স্পর্শিয়া তার ভাবনার গল্পগুলো ক্যামেরায় দেখানোর বাসনা মনের ভেতরে পুষতে থাকেন। সেই লক্ষ্যে নির্মাতা হিসেবে নামও লিখিয়েছেন। কিন্তু নির্মাতা হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করার মনোবাসনা থাকলেও তিনি এখন একজন অভিনেত্রী হিসেবেই বেশি পরিচিত। স্বপ্নচারিণী স্পর্শিয়াকে নিয়ে সাজানো হয়েছে ফটো ফিচার। \ ঢাকায় জন্মগ্রহণ করেন অর্চিতা স্পর্শিয়া। বেড়েও উঠেছেন এই শহরে,
নতুন ইউটিউবারের স্বপ্ন

নতুন ইউটিউবারের স্বপ্ন

তৌহিদুল ইসলাম ঃ "আমি ইউটিউবার হব এবং গরীব আর পথশিশুদের নিয়ে কাজ করব। তাদের যেকোনো বিপদে এগিয়ে আসব" কথাগুলো একজন নিউ ইউটিউবার এর ফেসবুক থেকে নেওয়া। ইউটিউবার এর নাম "শাকিব ইরশাদুল", তার ইউটিউব চ্যানেল'র নাম'ও তার নামানুসারেই "Shakib Irshadul"। বাংলাদেশের অন্যতম ইউটিউবার, ভ্লগার, My Tv'র C.E.O. তৌহিদ আফ্রিদি কে দেখেই নাকি তার ইউটিউব নিয়ে স্বপ্ন দেখা শুরু.... এখনো তার নেই তেমন Subscriber!! তবে তার স্বপ্নগুলো সব'ই আকাশ চুম্বি..। মানবতার সেবা করাই তার স্বপ্ন..।
শিগগিরই আসছে ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর পরবর্তী টিজার

শিগগিরই আসছে ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর পরবর্তী টিজার

খবরিকা ডেক্সঃ মাস কয়েক আগে প্রকাশ হয়েছিল দীপঙ্কর দীপন পরিচালিত কপ থ্রিলার ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর প্রথম টিজার। প্রচারণামূলক ভিডিওটি সেই সময় খুবই সাড়া জাগায়। এদিকে সম্প্রতি ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর মুক্তির দিন ঘোষণা হয়েছে। নির্মাতা জানান, ৬ অক্টোবর দেশের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে যাচ্ছে সিনেমাটি। পাশাপাশি স্বপ্ন স্কেয়ারক্রোর পরিবেশনায় ২০ অক্টোবর কানাডা, যুক্তরাষ্ট্র্র, আরব আমিরাত, ওমান ও কাতারের ২৫টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে ‘ঢাকা অ্যাটাক’। ২০১৬ সালের জানুয়ারিতে ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর শুটিং শুরু হয়। দৃশ্যায়ন হয় বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়ায়। সিনেমাটির প্রধান দুই চরিত্রে আছেন আরিফিন শুভ ও মাহি। আরো আছেন সৈয়দ হাসান ইমাম, আলমগীর, আফজাল হোসেন, লায়লা হাসান, এ বি এম সুমন, শতাব্দী ওয়াদুদ, নওশাবা, শিপন মিত্র প্রমুখ। বাংলাদেশের পুলিশের কর্মকর্তা সানী সানোয়ারের তত্ত্বাধানে নির্মিত হয়েছে ‘ঢাকা অ্যাটাক’। এর একটি
লন্ডনে মুক্তি পাচ্ছে ‘কত স্বপ্ন কত আশা’

লন্ডনে মুক্তি পাচ্ছে ‘কত স্বপ্ন কত আশা’

বিনোদন ডেস্ক: দেশের গণ্ডি পেরিয়ে এখন বিদেশেও ঢাকাই চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হচ্ছে। নজর কাড়ছে এবং প্রশংসা কুড়াচ্ছে বহির্বিশ্বের চলচ্চিত্রপ্রেমী এবং প্রবাসী দর্শকদের। এই মিছিলে এবার যোগ হচ্ছে ওয়াকিল আহমেদ পরিচালিত ‘কত স্বপ্ন কত আশা’ ছবিটি। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী ৭ জুলাই লন্ডনের ইস্টহামে মুক্তি পাচ্ছে পরীমণি অভিনীত ছবিটি। এরপর ৯ জুলাই উঠবে পূর্ব লন্ডনের হোয়াইটচাপেলের জেনেসিস সিনেমা হলে। ছবিতে পরীমণির বিপরীতে রয়েছেন বাপ্পি। ওয়াকিল আহমেদের পাণ্ডুলিপি ও পরিচালনায় ছবিটি চলতি বছরের ১৩ জানুয়ারি মুক্তি পায়। নির্মাতা বলেন, অসাম্প্রদায়িকতার জয়- এ বিষয়কে উপজীব্য করেই ‘কত স্বপ্ন কত আশা’ চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করা হয়েছে। বর্তমানে চলচ্চিত্রের দুঃসময়ে ছবিটি দেশের বাইরে মুক্তি পাওয়া মানে দেশীয় চলচ্চিত্রের জন্য নিঃসন্দেহে একটি সুসংবাদ। আশা করি, লন্ডনের দর্শক ছবিটি ভালোভাবে উপভোগ করবেন। ওয়াকিল আহমেদ আরও বল
প্রকাশ্যে ফারুকীর ‘ডুব’ কাহিনী

প্রকাশ্যে ফারুকীর ‘ডুব’ কাহিনী

খবরিকা ডেক্সঃ  নির্মাণের পর নানা জটিলতায় পড়ে সেন্সরবোর্ডে আটকে আছে মোস্তফা সরয়ার ফারুকী পরিচালিত 'ডুব'। চলচ্চিত্রটির কাহিনি নিয়ে আপত্তি তুলেছিলেন হুমায়ূন আহমেদ পত্নী মেহের আফরোজ শাওন। কী আছে চলচ্চিত্র 'ডুব'-এ এমন প্রশ্নের উত্তর জানা গেলো সমপ্রতি প্রকাশিত 'হলিউড রিপোর্টার'-এর একটি রিভিউতে। দেশে মুক্তি থেমে রইলেও দেশের বাইরে প্রশংসা কুড়িয়ে এনেছে 'ডুব'। '২০তম সাংহাই আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব' ও '৩৯তম মস্কো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব'এ প্রশংসা কুড়িয়েছে দর্শক ও সমালোচকদের। মস্কো ফিল্ম ফ্যাস্টিভালে চলচ্চিত্রটি অর্জন করেছে কোমারস্যান্ত জুরি পুরস্কার। উৎসবের লাল গালিচায় হেঁটে দেশে ফিরেছেন নির্মাতা ফারুকী ও অভিনেত্রী তিশা। শুধু কি তাই? আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমেও এসেছে ছবিটির প্রশংসা। আলোচনায় এসেছে হলিউড রিপোর্টার-এ প্রকাশিত এক সমালোচনা। সেখানে চলচ্চিত্র সমালোচক দেবোরাহ ইয়াং তার সমালো