শনিবার, ১২ জুন ২০২১, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ভিন্ন রূপে সাজছে আমিরাত

স্টাফ রিপোর্টার, দুবাই :

UAe
আগামী ২ ডিসেম্বর সংযুক্ত আরব আমিরাতের ৪২ তম স্বাধীনতা দিবস। জাতীয় এই দিবসকে ঘিরে প্রতি বছরের মত এবারও ভিন্ন রূপে সাজছে আমিরাত। এক্সপো-২০২০ এর স্থান নির্ধারনীতে দুবাইয়ের জয় লাভ করায় স্বাধীনতা দিবসের আনন্দ বাড়লো দ্বিগুণ। এ উপলক্ষ্যে ১ ও ২ ডিসেম্বর দুই দিনের সরকারী ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে।
আমিরাতের সব ক’টি শহরকে স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে সাজানো হয়েছে ভিন্ন রূপে। ইতোমধ্যে আবুধাবী, দুবাই, শাহরজা, রাস-আল-খাইমা, ফুজিরাহ, আল-আইন শহরের প্রধান প্রধান সড়ক, সুউচ্চ বিল্ডিং ও স্কুল-কলেজ ও মাদ্রাসাসহ বিশেষ বিশেষ স্থান গুলোতে জাতীয় পতাকা, বেলুন আর হরেক রকম বাতি দিয়ে সাজানো হয়েছে। এছাড়াও বিমান মহড়ার আয়োজন করেছেন আমিরাত সরকার। অন্যদিকে, বড় বড় শপিং মলগুলোতে দিবসটি উপলক্ষ্যে উৎসবের আমেজ লক্ষণীয়। ভিন্ন তালিকায় ন্যাশনাল ডে ফ্যাশন শো সহ আরব সংস্কৃতি ঐতিহ্যের নানা রকম আয়োজন সহ পণ্য বিশেষ ছাড় রেখেছে এসব শপিং মল।
দিবসটি উদযাপনের লক্ষ্যে আরবের অধিবাসীরা আমিরাতের শেখদের ছবি ও পতাকা দ্বারা নিজেদের গাড়ি সাজাতে ব্যস্ত সময় পার করছে। আমিরাতের আবুধাবী, দুবাই, ফুজিরাহ সহ সব ক’টি বিভাগীয় শহরের কর্ণেস পাড়ে স্বাধীনতা দিবসের রাতে সেসব গাড়ির প্রদর্শনী দেখানো হয়। আনন্দ ভাগাভাগি করার লক্ষ্যে ও আরব অধিবাসীদের উৎসাহ প্রদানের জন্য শহরের বিভিন্ন মহাসড়কে সেদিন আরবে অভিবাসী সহ লাখ পর্যটকের ভিড় হয়।
উল্লেখ্য, ১৯৭১ সালের ২ ডিসেম্বর ব্রিটিশদের হাত থেকে দেশটি স্বাধীনতা লাভ করে। স্বাধীনতা পরবর্তিতে মরহুম প্রেসিডেন্ট শেখ জায়েদ বিন সুলতান আল নাহিয়ানের নেতৃত্বে সড়ক যোগাযোগ অবকাঠামো ও মানব সম্পদ উন্নয়নে দেশটির অবস্থান অনেক উপরে চলে আসে। মাত্র কয়েক দশকের মধ্যেই মরুভূমির বুকে বড় বড় দালান আর অট্টালিকায় স্বপ্নের রাজ্য হিসেবে গড়ে উঠে আমিরাত। বর্তমানে বিশ্বের প্রথম দশটি ধনী দেশের একটি সংযুক্ত আরব আমিরাত।

Leave a Reply