বুধবার, ১২ মে ২০২১, ২৯ বৈশাখ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

সাবেক পূর্তপ্রতিমন্ত্রী মান্নানকে দুদকে তলব

image_69742
দুর্নীতির মাধ্যমে অবৈধ সম্পদ অর্জন ও হলফনামায় দেওয়া সম্পদ বিররণীতে অস্বাভাবিক বৃদ্ধির বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাবেক গৃহায়ন ও গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী আব্দুল মান্নান খানকে তলব করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি বেলা ১১ টায় সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে উপস্থিত থাকার জন্য তাকে চিঠি দিয়েছে কমিশন।রোববার দুদকের প্রধান কার্যালয় থেকে কমিশনের উপ-পরিচালক নাছির উদ্দিন তাকে এ চিঠি দেন বলে নিশ্চিত করেন দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা ও উপ-পরিচালক প্রণব কুমার ভট্টাচার্য।দুদক সূত্র জানায়, ঢাকা-১ আসনের সাবেক সাংসদ ও মহানগর আওয়ামীলীগের প্রভাবশালী নেতা এডভোকেট আব্দুল মান্নান। তিনি বিগত মহাজোট সরকারের গৃহায়ন ও গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী থাকাবস্থায় বিপুল সম্পত্তির মালিক হয়েছেন। পাঁচ বছর আগে তার সাকুল্যে ১০ লাখ ৩৩ হাজার টাকার সম্পত্তি ছিল। গত পাঁচ বছরের ব্যবধানে সেটা হয়েছে ১১ কোটি তিন লাখ টাকা। আগে তার বার্ষিক আয় ছিল তিন লাখ ৮৫ হাজার টাকা। সেই আয় বেড়ে দাঁড়িয়েছে বছরে তিন কোটি ২৮ লাখ টাকায়। পাঁচ বছরের মন্ত্রিত্বকালে তার সম্পত্তি ১০৭ গুণ বেড়েছে। এছাড়াও তার অপ্রদর্শিত অনেক সম্পত্তিও রয়েছে বলে দুদক সূত্র জানিয়েছে। সূত্র জানায়, হলফনামায় দেওয়া সম্পদ বিবরণীতে সম্পদের অস্বাভাবিক বৃদ্ধির বিষয়টি জানতে ও হলফনামায় উল্লেখ বহির্ভূত কোন সম্পত্তি আছে কি-না তা অনুসন্ধান করতে তাকে দুদকে ডাকা হয়েছে।উল্লেখ্য, গত ৫ জানুয়ারির নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য এ্যাড: সালমা ইসলামের কাছে পরাজিত হন মান্নন। এর আগেই আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা মান্নানকে দলের দফতর সম্পাদক পদ থেকে সরিয়ে দেয়।
উৎস- যুগান্তর