Tuesday, November 13Welcome khabarica24 Online

ভূমিকম্পে সারাদেশে ৩ জনের মৃত্যু

earthqu1429949286_77294

সারা দেশে শনিবার দুপুরে দুই দফায় শক্তিশালী ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে। এ ঘটনায় পাবনা, বগুড়া, টাঙ্গাইলে ৩ জনের মৃত্যুর পাশাপাশি কয়েকশত মানুষ আহত হয়েছেন। এছাড়া, সুনামগঞ্জে এক নৌকার আরোহী নিখোঁজ রয়েছেন। ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বাড়িঘর, অফিস-আদালত, স্কুল-কলেজ। রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে আঘাত হানা এ ভূমিকম্পের স্থায়ী ছিল কয়েক সেকেন্ড। রিখটার স্কেলে ৭.৫ মাত্রার এ ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিল নেপালের বারপাক অঞ্চলে।

পাবনায় আওয়ামী লীগ নেত্রী নিহত

পাবনায় ভূমিকম্পে একজন নিহত ও জেলার বিভিন্ন স্থানে শতাধিক ব্যাক্তি আহত হয়েছেন। নিহত রোকেয়া খানম পাবনা পৌর মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা কৃষক লীগের সহ সভাপতি সোহরাব উদ্দিনের স্ত্রী। পাবনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আহসানুর হক জানান, শনিবার বেলা সোয়া ১২টার দিকে সারা দেশের ন্যায় ভূমিকম্প শুরু হলে শহরের ময়নামতি এলাকার ঘর থেকে বের হওয়ার সময় মাথা ঘুরে দেওয়ালে লেগে মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হন রোকেয়া খানম ইতি (৫৫)। পরে তার পরিবারের লোকজন পাবনা জেনরেল হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয় বলে জানিয়েছেন তার স্বামী সোহরাব উদ্দিন।

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে গৃহবধূ নিহত

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে পর পর দু’বার ভূমিকম্পন অনুভূত হয়। এতে মানুষ আতঙ্কে দিক বিদিক ছুটাছুটি করতে থাকে। এসময় গৃহবধূ পরিনা বেগম তার বাড়িতে রান্না করছিলেন। সে আঙ্কিত হয়ে ঘর থেকে বের হওয়ার সময় মেঝেতে পড়ে জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। এসময় তাকে উদ্ধার করে মির্জাপুর কুমুদিনী হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এদিকে, ভূঞাপুরে ভূমিকম্পের ঝুঁকি এড়াতে হুড়োহুড়ি করে নামতে গিয়ে ভূঞাপুর পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৩০ ছাত্রী আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে ১১ কে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপস্নেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের মধ্যে ১  জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

বগুড়ায় দেওয়াল ধসে নারী নিহত

বগুড়ার দুপচাঁচিয়ার গুনাহার ইউপির অনুহত সিংড়া গ্রামের বয়েজ উদ্দিন আকন্দের স্ত্রী মোরর্শেদা বেগম (৫৫) বাড়ির পাশে গরম্নকে ঘাস খাওয়ানোর সময় ভূমিকম্পে মাটির দেয়াল ধসে পড়ে। এতে সে চাপা পড়ে মারা যায়।

সুনামগঞ্জে নৌকার যাত্রী নিখোঁজ

সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার উপজেলার সুরমা নদীর পুটিপসি এলাকায় ভূমিকম্পের সময় একটি খেয়া নৌকা ডুবির ঘটনার একজন নিখোঁজ হয়েছেন। প্রথম দফা ভূমিকম্পের সময় নৌকা ডুবির এ ঘটনাটি ঘটে। নিখোঁজ খেয়া নৌকা যাত্রী রতজিৎ দাস (৩৩) উপজেলার মান্নারগাঁও ইউনিয়নের পুটিপসি গ্রামের রনেশ দাসের ছেলে।

এছাড়া, সাভার, কেরানীগঞ্জ, গাইবান্ধা, খুলনা, রাজশাহী, যশোর, গোপালগঞ্জ, সৈয়দপুর, হবিগঞ্জ, বরগুনা, কুষ্টিয়া, নওগাঁ, নীলফামারী, ময়মনসিংহ, কুমিল্লা, মানিকগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, বাগেরহাট, সিরাজগঞ্জ, রংপুর, ঝিনাইদহ ও মাদারীপুর ভূমিকম্পে কয়েকশ’ মানুষ আহত ও ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়ছে। এসব এলাকায় মানুষ ঘর থেকে বাইরে বেরিয়ে আসতে দেখা যায়।

 

উৎস- বাংলাদেশ প্রতিদিন