শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

পারভীন লিয়া’র দুটি কবিতা : # মুখোশ পরা মানুষ, # দহন ব্যাথায় তুমি


————————-
মুখোশ পরা মানুষ
————————–
মাথায় তুমি বসে আছো
চিন্তা শক্তির শত্রু হয়ে,
ভাবনা গুলো চিবিয়ে খেলো–
মুখোশ পরা মানুষ যত।

ভালো লাগার অলস সময়
আসল নকল চিনতে থাকে,
চেনা জানার পৃথিবীতে–
নষ্ট মানুষ রাস্তা মাপে।

ঘুণ ধরেছে সমাজটাতে
সংসার ভুলে ভাঙ্গতে থাকে,
ভালবাসার রঙিন ঘরে–
অভিনয়ের গোলক ধাঁ ধাঁ।

আমি তুমি নতুন হয়ে
ঘুরতে থাকি ঘুর্ণিপাকে,
অবুঝ মনে হাজার কথা–
জমতে থাকে দিনে রাতে।

হৃদয় মাঝে সবুজ শিশু
লতার মতো বাড়তে থাকে,
ভালবাসার দাপট দেখায়–
সুখগুলো সব তুলে রাখি।

মনের দামে মনকে চিনি
চেনা জানার অভিজ্ঞতায়,
দুচোখ ভরে স্বপ্ন দেখি–
স্বপ্নের সাথেই মাখামাখি।

তুমি আমার অন্য ভাষা
শিখতে গিয়ে যায় যে বেলা,
সুখে দুখের অন্য মানুষ–
অন্য চাওয়ার উৎসব মেলা।
—————————————–

দহন ব্যাথায় তুমি

——-০——
জীবন কিছু শিখায় দেখো–
দুঃখের অনুদানে,
সব ভুলে যাও পর করে দাও,
সুখের অনুপ্রাণে।
কার টানে যে ভুলেছো আমায়,
কার জন্য দূর,
দহন ব্যাথায় কওনা কথা তবু,
স্মৃতি যে মধুর !
নিঃশ্ব হয়ে বিশ্বটা আজ অন্ধকারে,
প্রাণটা ধরফর,
কোথায় গেলে শান্তি পাবো
কোথায় আমার ঘর ?
জীবন খেলার আনন্দ মেলার
হাট বাজারে হাটি
কত সংসার চোখের সামনে
করে ঝগড়া ঝাটি !
আমি তুমি অবহেলায়
জীবন খাতায় গল্প লিখে যাই
তোমার গল্পের সরল লেখায়
হবে কি আমার ঠাই ?