বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ৫ কার্তিক ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

পঞ্চম দফা উপজেলা নির্বাচনে : সংঘর্ষের আশংকা

up-election_82627
পঞ্চম দফায় ৩৫ জেলার ৭৪ উপজেলায় সোমবার ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এবারও ভোট গ্রহণের সময় সহিংসতা, কেন্দ্র দখলের আশঙ্কা করছেন বিরোধীদলীয় প্রার্থীরা।  উদ্বেগে রয়েছে সংশ্লিষ্ট এলাকার সাধারণ ভোটাররাও।তবে কমিশন বলছে, সুষ্ঠু নির্বাচনের বিষয়ে আশাবাদী।ইসি নির্বাচন সংশ্লিষ্ট এলাকায় যানবাহন চলাচল বন্ধ ঘোষণা করে সোমবার ছুটি ঘোষণা করেছে।
পঞ্চম দফায় চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন এক হাজার ৬৩ প্রার্থী। উপজেলা পরিষদের জনপ্রতিনিধি নির্বাচনের সুযোগ পাচ্ছেন এক কোটি ৪২ লাখ ৬০ হাজার ৬৬৩ জন ভোটার। এ নির্বাচনের আগে শনিবার শেষ মুহূর্তের প্রচার-প্রচারণা চালিয়েছেন প্রার্থীরা।তবে একেবারে শেষ সময়ে এসে নির্বাচনের আগের দিন টাংগাইলের বাসাইল ও ঠাকুরগাও সদর উপজেলা নির্বাচন স্থগিত করেছে নির্বাচন কমিশন।আগের নির্বাচনগুলোর মতো এই নির্বাচনেও একই ধরনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। একই সংখ্যক হারে মাঠে নেমেছেন সশস্ত্র (সেনা ও নৌ) বাহিনী, বিজিবি, র‌্যাব, পুলিশ ও আনসার বাহিনীর সদস্যরা।
এপর্যায়েও ভোট গ্রহণের আগে কমিশনে ব্যাপক হারে অভিযোগ আসছে। এতে নির্বাচনী এলাকায় ক্ষমতাসীন সমর্থিত প্রার্থী, কর্মী-সমর্থক এবং আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর বিরুদ্ধে ভয়-ভীতি দেখানোর অভিযোগ করা হয়েছে। বেশ কয়েকজন প্রার্থী কেন্দ্র দখলের আশঙ্কা প্রকাশ করে প্রতিকার চেয়েছেন। প্রতিপক্ষের হামলার শিকার হয়েছেন কোনো কোনো প্রার্থী। অভিযোগকারীরা সুষ্ঠু নির্বাচনে বাড়তি নিরাপত্তা চেয়েছেন।তবে কমিশন কর্মকর্তারা জানান, আগের নির্বাচনগুলোর মতোই এ নির্বাচনেও একই নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যদের ফৌজদারি কার্যবিধির ১৩১ ধারা প্রয়োগের ক্ষমতা দেয়া হয়েছে। এ ক্ষমতাবলে ম্যাজিস্ট্রেটের অনুপস্থিতিতেও সশস্ত্র বাহিনীর কর্মকর্তারা অ্যাকশনে যেতে পারবেন।এ পর্যন্ত চার দফায় উপজেলা নির্বাচন শেষ হয়েছে। কমিশন পাঁচ ধাপে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে। পঞ্চম বা শেষ ধাপের নির্বাচন আগামীকাল হতে যাচ্ছে। চতুর্থ ধাপে স্থগিত হওয়া গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলা নির্বাচনও কাল। তবে তফসিল ঘোষণা সত্ত্বেও টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলায় আগামীকাল ভোট গ্রহণ করা হচ্ছে না। অনিবার্য কারণ দেখিয়ে এ নির্বাচন স্থগিত করেছে কমিশন। আইনি জটিলতা থাকায় এ দফায় ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা নির্বাচন হচ্ছে না বলে শনিবার সাংবাদিকদের জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মোঃ শাহনেওয়াজ। তবে কমিশন কর্মকর্তারা বলেছেন, আইনি বাধায় এ নির্বাচন স্থগিত হচ্ছে না। নির্বাচন নিয়ে দুধরনের রায় থাকায় ইসি এখানে নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। প্রশাসনকে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিতে বলা হয়েছে।
জানা গেছে, পঞ্চম এবং শেষ ধাপের এই নির্বাচনে ৭৪ উপজেলার মধ্যে ২৮ উপজেলায় ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী রয়েছে।
উৎস- যুগান্তর