শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১, ৩১ বৈশাখ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক চার লেন প্রকল্পের কাজ এ বছরেই শেষ হবে : যোগাযোগমন্ত্রী

image_92450.okader

যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক ফোর লেনে উন্নীতকরণ প্রকল্পের কাজ এ বছরেই শেষ হবে। তিনি বলেন, প্রকল্পের আওতায় এই মহাসড়কে মাটি ভরাটের কাজ ৯৮ শতাংশ শেষ হয়েছে।
মন্ত্রী আজ সংসদে প্রশ্নোত্তর পর্বে এক সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে আরো বলেন, চলতি বছরের শেষ নাগাদ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ফোর লেনের কাজ শেষ হবে বলে আশা করা যায়। এই মহাসড়কের ১৯০ কিলোমিটারের মধ্যে ৬৬ কিলোমিটার ফোর লেনের কার্পেটিংয়ের কাজও ইতিমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে।
সরকারি দলের মোরশেদ আলমের এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক ফোর লেনে উন্নীতকরণ প্রকল্পে এ পর্যন্ত এক হাজার ৩৬৯ কোটি ৯ লাখ টাকা ব্যয় হয়েছে। এই প্রকল্পে শুরু থেকে এই পর্যন্ত এক হাজার ৬২১ কোটি ৯৬ লাখ টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।
সরকারি দলের এম আবদুল লতিফের অপর এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ঢাকা শহরের যানজট নিরসনকল্পে সরকার অনেক উদ্যোগ গ্রহণ করেছে এবং করছে, যার ফলে যানজট নিরসনে অনেক সাফল্য অর্জিত হয়েছে। তিনি বলেন, ঢাকা শহরের পূর্ব-পশ্চিম যোগাযোগ ব্যবস্থা স্থাপনের মাধ্যমে শহরের যানজট নিরসনে ১ হাজার ৭৯৩ মিটার দীর্ঘ রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমান ফ্লাইওভার (মিরপুর-এয়ারপোর্ট রোড ফ্লাইওভার) নির্মাণ করা হয়েছে।
এ ছাড়া বনানী রেলক্রসিংয়ে ৮০৪ মিটার দীর্ঘ রেলওয়ে ওভারপাস, ঢাকা মহানগরীর পশ্চিমাংশের সাথে বুড়িগঙ্গা তীরবর্তী কেরানীগঞ্জে যাতায়াত সহজ করার জন্য শহীদ বুদ্ধিজীবী সেতু, টঙ্গী রেলওয়ে জংশন ও টঙ্গী শিল্প এলাকার রেলপথ ক্রসিংস্থলে সৃষ্ট যানজট নিরসনের লক্ষ্যে টঙ্গী-কালিগঞ্জ-ঘোড়াশাল-পাঁচদোনা সড়কের ১ম কিলোমিটার শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার উড়াল সেতু নির্মাণ করাসহ বৃহত্তর সিলেট, কিশোরগঞ্জ, ব্রাহ্মণবাড়িয়াগামী যানবাহনের ঢাকা প্রবেশ নির্গমন সহজ করার লক্ষ্যে শীতলক্ষ্যা নদীর উপর সুলতানা কামাল সেতু নির্মাণ করা হয়েছে।
যোগাযোগমন্ত্রী বলেন, ঢাকা শহরের যানজট নিরসনে ২০৩৯.৮৪ কোটি টাকা ব্যয়ে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান থেকে গাজীপুর পর্যন্ত ২০ কিলোমিটার দীর্ঘ উভয় দিকে প্রতি ঘণ্টায় চার হাজার যাত্রী পরিবহনে সক্ষম বাস র‍্যাপিড ট্রানজিট (বিআরটি) বাস্তবায়নের কাজ গত বছরের ৩১ অক্টোবর থেকে শুরু হয়েছে। এছাড়া দ্রুত গণপরিবহন হিসেবে মাস র‍্যাপিড ট্রানজিট (এমআরটি) লাইন-৬ বা মেট্রো রেল প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ শুরু হয়েছে। এই প্রকল্পটি ২০২৪ সালের জুন পর্যন্ত সম্পাদনের কথা রয়েছে।