শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১, ৩১ বৈশাখ ১৪২৮খবরিকা অনলাইনে আপনাকে স্বাগতম।

কাবুলে নির্বাচন কমিশন ভবনে তালেবানের হামলা

image_66977.afghan_attack

 

আফগানিস্তানে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের মাত্র এক সপ্তাহ আগে বিদ্রোহীরা রাজধানী কাবুলে নির্বাচন কমিশনের সদর দফতরে আক্রমণ চালিয়েছে। তালেবান মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ বিবিসির কাছে নিশ্চিত করেছেন যে তারাই এ আক্রমণ চালিয়েছেন।আক্রমণকারীরা সংখ্যায় ছিল চার জন এবং তাদের সবাই পুলিশের হাতে নিহত হয়েছে বলে জানা গেছে। পুলিশ বলেছে, আক্রমণকারীদের দমন করতে বিশেষ বাহিনী ওই ভবনটির ভেতরে ঢোকে এবং প্রথম দফা পাল্টা আক্রমণে তিন জনকে তারা গুলি করে হত্যা করা হয়। বাকি একজনের সাথে মোকাবিলা আরো কিছুক্ষণ ধরে চলে। তবে শেষ পর্যন্ত চারজনই নিহত হয়।বিপুল পরিমাণে অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে মহিলাদের বোরকা পরে আসা জঙ্গীরা নির্বাচন কমিশনের কাছাকাছি একটি তিনতলা ভবনে ঢুকে পড়ে। সেটিকে তারা উচ্চ-নিরাপত্তাব্যবস্থা সম্বলিত নির্বাচন কমিশন ভবনের ওপর আক্রমণ চালানোর ঘাঁটি হিসেবে ব্যবহার করে।
জঙ্গীরা এর পর স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র থেকে কমিশন ভবনের ওপর গুলিবর্ষণ শুরু করে।কাবুল পুলিশ প্রধান বলেছেন, তারা আক্রমণকারীদের কোণঠাসা করে ফেলতে সক্ষম হন। তিনি বলেন, তাদের কাছে রকেটচালিত গ্রেনেড সহ হালকা ও ভারী অস্ত্র ছিল।নির্বাচন কমিশনের মুখপাত্র নূর মোহাম্মদ বলেছেন, কমিশন ভবনের ভেতরে লোকের নিরাপদে আছেন। তালেবান এর আগেই হুমকি দিয়েছে যে তারা আগামি সপ্তাহে অনুষ্ঠেয় ওই নির্বাচন বিঘ্নিত করবে। এক সপ্তাহ আগেই নির্বাচন কমিশনের ভবনে আরো একদফা আক্রমণ হয়েছিল।কাবুলে অবস্থানরত বিবিসির সংবাদদাতা বলছেন, আক্রমণটি এমন এক সময় চালানো হলো – যখন আর কয়েকঘন্টা পরই নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে কতগুলো ভোট কেন্দ্র খোলা হবে তার সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানানোর কথা। এর একদিন আগেই বিদেশী ত্রাণকর্মীরা থাকতেন এমন একটি ভবনে আক্রমণ চালানো হয়।